Main Menu

নাইক্ষ্যংছড়ি সীমান্তে স্বর্ণের বারসহ রোহিঙ্গা যুবক আটক

নাইক্ষ্যংছড়ি(বান্দরবান)থেকে:
নাইক্ষ্যংছড়ি সীমান্ত ঘুমধুম ইউনিয়নের বেতবুনিয়া বাজার এলাকা থেকে ৩ পিস স্বর্ণের বারসহ (৪২ ভরি) এক রোহিঙ্গা যুবককে আটক করেছে পুলিশ ।

সোমবার(২১ জুন) রাত সাড়ে ৯টার দিকে নাইক্ষ্যংছড়ি সীমান্তের ঘুমধুম ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের বেতবুনিয়া বাজার এলাকা থেকে ৪২ ভরি স্বর্ণসহ তাকে আটক করা হয়।

২২ জুন (মঙ্গলবার) সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নাইক্ষ্যংছড়ি থানা অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ আলমগীর হোসেন।

ঘুমধুম পুলিশ তদন্তকেন্দ্র সূত্র জানান, গত সোমবার রাতে নাইক্ষ্যংছড়ি থানা অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ আলমগীর হোসেনের দিকনির্দেশনা এবং সার্বিক তত্ত্বাবধানে ঘুমধুম পুলিশ তদন্তকেন্দ্রের ইনচার্জ এস,আই মুখলেছুর রহমানের নেতৃত্বে সঙ্গীয় ফোর্স এএসআই মুহাম্মদ শাহাবুদ্দিনসহ একটি দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সীমান্তের ঘুমধুম ইউনিয়নের বেতবুনিয়া বাজার এলাকা অভিযান চালিয়ে ৪২ (তিন পিস স্বর্ণ ভার) ভরি স্বর্ণসহ এক পাচারকারী রোহিঙ্গা যুবককে আটক করতে সক্ষম হয়।

উদ্ধাকৃত স্বর্ণের আনুমানিক বজার মূল্য ২৯ লাখ ৪০ হাজার টাকা।

আটক স্বর্ণ পাচারকারি যুবক কক্সবাজার জেলার উখিয়া উপজেলার কুতুপালং শরণার্থী ক্যাম্পের ই-ব্লকের মৃত নুর হোসেনের পুত্র মো,ইউনুছ(২৫)।

ঘুমধুম পুলিশ তদন্তকেন্দ্র ইনচার্জ এসআই মুখলেছুর রহমান এই প্রতিবেদককে বলেন, রোহিঙ্গা মো, ইউনুছ সীমান্ত অনুপ্রবেশের চেষ্টা চালিয়ে পাচারের উদ্দেশ্য স্বর্ণগুলো নিয়ে আসছিলো মায়ানমার থেকে। পথিমধ্যে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে অভিযান পরিচালনা করে তার দেহ তল্লাশি করে ৩ পিস স্বর্ণের বারসহ তাকে আটক করা হয়। তিনি দীর্ঘদিন ধরে মায়ানমার থেকে স্বর্ণ পাচার করছে বলে জানান তিনি ।
আটককৃত আসামীকে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা দায়ের করে আলামতসহ মঙ্গলবার সকালে বান্দরবান জেল হাজতে পাঠানো হয়।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *