Main Menu

ক্রসফায়ারের হুমকি দেয়ায় সোনাগাজী থানার এসআই মাহবুবের বিরুদ্ধে মামলা | বাংলারদর্পণ

সোনাগাজী প্রতিনিধি :
ফেনীর সোনাগাজী থানার উপপুলিশ পরিদর্শক (এসআই) মাহবুব আলম সরকারের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহারের জন্য বাদীকে ভয়ভীতি, ক্রসফায়ারের হুমকি ও জোরপূর্বক স্বাক্ষর আদায়ের অভিযোগ উঠেছে।

এ অভিযোগে জেলার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত ও আমলি আদালতে অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী গিয়াস উদ্দিন দুলাল।

মঙ্গলবার বিকালে এ অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক কামরুল হাসান অভিযোগ আমলে নিয়ে ২০ ডিসেম্বর শুনানির দিন ধার্য করেন।

ভুক্তভোগী গিয়াস উদ্দিন দুলাল জানান, ২০১৯ সালের ১৭ জানুয়ারি ছাগলনাইয়া থানার সাবেক ওসি এমএম মোর্শেদের নেতৃত্বে ১১ পুলিশ ও দুই সোর্স তার কাছে চাঁদা দাবি করেন।

চাঁদা না দেয়ায় ক্রসফায়ারের হুমকি দিয়ে পায়ে গুলি করা হয়। এতে তার একটি পা কেটে ফেলতে হয়। পরে পুলিশ ঘটনাকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করতে ১ হাজার ৪০০ পিস ইয়াবা দিয়ে মিথ্যা মামলা দায়ের করে।

৩ নভেম্বর সাবেক ওসি এমএম মোর্শেদকে প্রধান আসামি করে ১১ পুলিশ ও দুই সোর্সের নাম উল্লেখ করে আদালতে মামলা করেন দুলাল।

মামলার পর থেকে প্রধান আসামি ছাগলনাইয়া থানায় সাবেক ওসি এমএম মোর্শেদসহ অন্যরা মামলা প্রত্যাহার করার জন্য তাকে চাপ দিয়ে আসছে।

দুলাল আরও জানান, এমএম মোর্শেদ ও ৫নং আসামি সোনাগাজী থানার এসআই মাহবুব আলম সরকার এবং আরও ২-৩ জনকে নিয়ে গত ১৮ নভেম্বর মামলার সাক্ষী মৌলভী ইব্রাহীম সড়কস্থ মৌলভী বেলালের ভাড়া বাসায় হানা দেন।

পরে পুলিশ সদস্যরা মামলা প্রত্যাহারের জন্য দুলালের ইচ্ছার বিরুদ্ধে দুটি দরখাস্তে জোরপূর্বক স্বাক্ষর নেয় এবং তাকে জোরপূর্বক ও ভয়ভীতি দেখিয়ে আদালতে হাজির করায়।

এ ঘটনায় সোমবার আদালতে অভিযোগ করেন দুলাল। জানমালের নিরাপত্তার দাবিতে প্রয়োজনীয় আইনগত সহায়তা পাওয়ার জন্য আদালতে প্রার্থনা করেন ভুক্তভোগী গিয়াস উদ্দিন দুলাল।

তবে অভিযুক্ত এসআই মাহবুব আলম সরকার অভিযোগটি ভিত্তিহীন বলে দাবি করেছেন। বাংলারদর্পন






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *