Main Menu

বখতারমুন্সি কলেজ অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে সাংসদের স্বাক্ষর জালিয়াতির অভিযোগ

ফেনী:
ফেনীর সোনাগাজী উপজেলার বখতারমুন্সি শেখ শহিদুল ইসলাম ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ মমিনুল হকের বিরুদ্ধে ফেনী-৩ আসনের সংসদ সদস্য  হাজী রহিম উল্যাহর স্বাক্ষর জালিয়াতির অভিযোগ উঠেছে।
জানা যায়, গত ২৮ জানুয়ারী ২০১৬ তারিখে অধ্যক্ষ মমিনুল হক কলেজের গভর্নিং বড়ির তৎকালীন সভাপতি সাংসদ রহিম উল্যাহর স্বাক্ষর জালিয়াতি করে সংরক্ষিত নারী আসনের সংসদ সদস্য জাহান আরা সুরমাকে আহবায়ক করে নয় সদস্যের আহবায়ক কমিটি অনুমোদনের জন্য জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের কলেজ পরিদর্শক বরাবরে চিঠি প্রেরন করে।

সাংসদ রহিম উল্যাহ জানান, অধ্যক্ষের প্রেরিত চিঠির সত্যতা যাচাই করার জন্য জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ আমাকে অবহিত করলে বিষয়টি আমার দৃষ্টিগোচর হয়। পরে আমি স্বশরীরে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে গিয়ে অধ্যক্ষের প্রেরিত চিঠিতে স্বাক্ষরটি আমার নয় বলে কতৃপক্ষকে অবহিত করি। তিনি আরও জানান, অধ্যক্ষ মমিনুল হক জামায়াতের সুরা সদস্য, তার অনিয়ম দুর্নীতিতে কলেজটির শিক্ষা কার্যক্রম ধবংসের পথে।জালিয়াতির বিষয়ে তাকে  জিজ্ঞাসা করলে তিনি ক্ষমা প্রার্থনা করেন ।

তবে অভিযোগের বিষয়ে অধ্যক্ষ মমিনুল হকের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, সাংসদের পরামর্শে কমিটির চিঠি প্রেরন করা হয়েছিল। জামায়াত নিয়ন্ত্রিত আল কেমি হাসপাতালের পরিচালক পদে থাকার কথা স্বীকার করলেও জামায়াত রাজনীতির সাথে সংশ্লিষ্টতার কথা তিনি অস্বীকার করেন।
উল্লেখ্য , গত ১৬ অক্টোবর ১৬ তারিখ দুপুরে অধ্যক্ষ মমিনুল হক শিক্ষা বোর্ড থেকে একটি  চিঠি এসেছে বলে শিক্ষক আলমগীর হোসেনকে তার অফিসে আসতে বলেন। তার কথামত তিনি অফিসে এলে অধ্যক্ষ মমিনুল হক তাকে হত্যার  উদ্দেশ্যে তার উপর হামলে পড়েন। এসময় তিনি আলমগীর হোসেনকে শ্বাসরোধ করে হত্যার চেষ্টা চালান। তার চিৎকার শুনে কলেজের অপরাপর শিক্ষকরা ছুটে এসে তাকে উদ্ধার করে। এ নিয়ে শিক্ষকদের মাঝে চরম ক্ষোভ ও অসন্তোষ  বিরাজ করছিল।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *