Main Menu

সাংগঠনিকভাবে নাজুক ১৪ জেলায় কাজ করবে কেন্দ্রীয় আ’লীগ

 

ঢাকা :

আগামী সংসদ নির্বাচনের আগেই দেশের প্রতিটি অঞ্চলে নিজেদের অবস্থানকে সুসংহত করতে চায় আওয়ামী লীগ। তবে অন্তকলহ, কর্মীদের সঙ্গে নেতৃত্বের দূরত্ব, জনবিচ্ছিন্নতাসহ বিভিন্ন কারণে দেশের ১৪টি জেলায় দলের অবস্থা নাজুক। কয়েকটি সমীক্ষায় এমন চিত্রই দেখতে পেয়েছে দলের শীর্ষ নেতৃত্ব । এলাকাগুলোতে আওয়ামী লীগের অবস্থান সুদৃঢ় করতে দলের কেন্দ্রীয় পর্যায় থেকে বিশেষ উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। শিগগিরই এলাকাগুলোতে নিবিড়ভাবে কাজে নামছেন আওয়ামী লীগের শীর্ষ পর্যায়ের নেতারা।

নাজুক এলাকাগুলোর মধ্যে শীর্ষে আছে চট্টগ্রাম। রাজধানীর (২০ টি আসন) পরই আসন সংখ্যা সবচেয়ে বেশি চট্টগ্রামে (১৬টি আসন)। তাই অতি গুরুত্বপূর্ণ এই বন্দরনগরী। এছাড়া নাজুক অবস্থায় থাকা অন্যান্য এলাকাগুলো হলো: কক্সবাজার (৪টি আসন), ফেনী (৩টি আসন), লক্ষীপুর (৪টি আসন), নোয়াখালী (৬টি আসন), বগুড়া (৭টি আসন), জয়পুরহাট (২টি আসন), গাইবান্ধা (৫টি আসন), পাবনা (৫টি আসন), ময়মনসিংহ (১১ টি আসন), রাজশাহী (৬টি আসন), চাপাইনবাবাগঞ্জ (৩টি আসন), নওগাঁ (৬টি আসন) এবং নারায়ণগঞ্জ (৫টি আসন)।

আওয়ামী লীগের শীর্ষ পর্যায় সূত্রে জানা গেছে, একই এলাকায় একাধিক নেতা ও তাঁদের মধ্যে বিরোধ, নেতাদের সঙ্গে তৃণমূলের বিরোধ বা দূরত্ব, নেতাদের জনপ্রিয়তা হারানো, নেতৃত্ব শূন্যতা, স্থানীয় পর্যায়ে সাংগঠিনক দুর্বলতাসহ বিভিন্ন কারণে এলাকাগুলোতে দলের অবস্থান নাজুক হয়েছে। এখন আওয়ামী লীগের শীর্ষ পর্যায়ের নেতারা এসব এলাকায় গিয়ে পরিস্থিতি উন্নয়নে সচেষ্ট হবেন।

পরিস্থিতির উন্নয়নে আওয়ামী লীগের শীর্ষ পর্যায়ের নেওয়া পদক্ষেপকে বলা হচ্ছে ‘ক্রাশ প্রোগ্রাম’। দলের জ্যেষ্ঠ নেতারা নাজুক এলাকাগুলোতে সশরীরে উপস্থিত থেকে স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতৃত্বের মধ্যেকার কোন্দল মেটাবেন। চালাবেন শুদ্ধি অভিযান। আর কোনো নেতৃত্ব জনপ্রিয়তা হারালে সেখানে নিয়ে আসা হবে নতুন ও জনপ্রিয় কাউকে।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *