Main Menu

প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশের পরও দখলমুক্ত হয়নি কুদ্দুস মিয়া সঃ.প্রাঃ.বিঃ মাঠ

সৈয়দ মনির অাহমদ : প্রকাশ- বুধবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৬।

ফেনীর সোনাগাজী উপজেলার কুদ্দুস মিয়ার হাট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠ সহ প্রায় ৩২শতক ভুমি দীর্ঘদিন ধরে দখল করে অবৈধ স্থাপনা নির্মান করেছে স্থানীয় প্রভাবশালীরা।

সুত্রমতে জানা যায়, গত ১৪ জানুয়ারী ২০১৫ তারিখে প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর থেকে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রনালয়ের সচিবের মাধ্যমে বিদ্যালয়ের বেদখলকৃত ভুমি পুনরুদ্ধারের বিষয়ে নির্দেশনা দেয়া হয়। কিন্তু অদৃশ্য কারনে মানা হয়নি প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা।
সরেজমিনে জানা যায়, ১৯৭৩ সালের ১০ মার্চ স্থানীয় জমিদার অাবদুল কুদ্দুস মজুমদার ও মোহাম্মদ মোস্তফা ভুঞা ৪৫ শতক ভুমি প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের নামে ছাপ কবলায় হস্তান্তর করেন। ওই সময় উক্ত ভুমি নাল হিসেবে ছিল। পরে পর্যায়ক্রমে স্থানীয় প্রভাবশালী মহল বিদ্যালয়ের চতুর্পাশের ভুমি দখল করে অবৈধ স্থাপনা নির্মান করে।
বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি অামজাদ হোসেন কিরন জানান, বিদ্যালয়ের মাঠসহ প্রায় ৩২ শতক ভুমি দখল করে দীর্ঘদিন যাবত অবৈধ ভাবে পাকা, অাধা পাকা দোকান ঘর নির্মান করেছে। স্থানীয়ভাবে বহু দরবার করেও বেদখলি ভুমি উদ্ধার করা যায়নি।
প্রধানমন্ত্রীর দপ্তরের গোপন শাখা থেকে গত ১৪ জানুয়ারী ১৫ তারিখে ভুমি পুনরুদ্ধারের চিঠি পেয়ে উপজেলা শিক্ষা অফিস ১৫ মার্চ ২০১৫ তারিখে বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষকের কাছে চিঠি প্রেরন করেন। কিন্তু অদৃশ্য কারনে তা থেমে গেছে। তিনি অারো জানান, গত ২০ এপ্রিল ২০১৫ তারিখে উপজেলা সহকারী ভুমি কমিশনার’র কাছে অভিযোগ করেও কোন ফল পাওয়া যায়নি।
এ ব্যাপারে সোনাগাজী উপজেলা সহকারী ভুমি কমিশনার বিদর্শী সম্ভৌধী চাকমা বলেন, ওই ভুমিতে বর্তমানে যারা দখলে অাছেন, এটা তাদের পৈত্রিক সম্পত্তি বলে জানায় স্থানীয়রা।

বিদ্যালয়ের প্রধানশিক্ষক রফিকুল ইসলাম জানান, ভবনের বাহিরে সম্পুর্ন ভুমি বেদখল হওয়ায় শিক্ষার্থীদের খেলাধুলা ও শরীরচর্চার কোন মাঠ নেই। দ্রুত অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করতে সংশ্লিস্টদের অাশু হস্তক্ষেপ কামনা করেন তিনি।

Exif_JPEG_420
Exif_JPEG_420

ছবিতে, বিদ্যালয়ের মাঠে নির্মিত অবৈধ স্থাপনা।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *