Main Menu

সোনাগাজীতে সৌদি প্রবাসী আমির হোসেন ও তার স্ত্রীকে হত্যার চেষ্টা

সোনাগাজী(ফেনী) প্রতিনিধি :
ফেনীর সোনাগাজী উপজেলার ছাড়াইতকান্দি গ্রামের কমর আলী খাঁ পাঠান বাড়ীতে ভুমি আত্মসাতে ব্যার্থ হয়ে প্রবাসী আমির হোসেন ও তার স্ত্রী কোহিনুর বেগমকে হত্যার চেষ্টা করেছে একই বাড়ীর বেলায়েত হোসেন ও তার সহযোগীরা। স্থানীয় লাঠিয়াল বেলায়েত হোসেন ও তার সহযোগীদের ধারাবাহিক হামলা মামলা আর অত্যাচার নির্যাতনে প্রবাসী আমির হোসেন ও তার স্ত্রী সন্তানদের জীবন অতীষ্ট হয়ে উঠছে।

ভূক্তভোগী ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়- পূর্ব পরিকল্পিতভাবে বৃহষ্পতিবার (২৮ নভেম্বর) সকালে আমির হোসেন ও তার স্ত্রী কোহিনুর বেগম ইট কেনার জন্য ব্রিকফিল্ডে যাওয়ার পথে বাড়ীর প্রবেশমুখে ছাড়াইতকান্দি গ্রামের এছলামের পূত্র বেলায়েত হোসেন, তার পূত্র আনোয়ার হোসেন পিন্টু, জামাতা নুরুল হুদা ও তাদের সহযোগীরা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে অতর্কিত আক্রমন করে। তারা লাঠি-শোটা দিয়ে এলোপাতাড়ি আঘাত করে এবং প্রবাসী আমির হোসেনের গোপন অঙ্গে আঘাত করে প্রকাশ্যে হত্যার চেষ্টা চালায়।

এ সময় সৌদি প্রবাসীর সঙ্গে থাকা নগদ একলক্ষ ষাট হাজার টাকা, ৩০হাজার টাকা দামের দুইটি স্মার্টফোন, কোহিনুর বেগমের গলায় থাকা ২ভরি ৪আনা স্বর্ণের নেকলেচ ও ১২আনা স্বর্ণের চেইন, জোর পূর্বক ছিনিয়ে নিয়ে যায়। সন্ত্রাসী আনোয়ার হোসেন পিন্টু ও নুরুল হুদা প্রবাসীর স্ত্রী কোহিনুর বেগমের পরিধেয় কাপড়-ছোপড় নিয়ে টানাহেঁচড়া করে শ্লীলতাহানী করে।

 

প্রবাসী ও তার স্ত্রীর চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে আমির হোসেন ও কোহিনুর বেগমকে গুরুতর জখমী অবস্থায় উদ্ধার করে সোনাগাজী হাসপাতালে ভর্তি করে। ২৯ নভেম্বর আমির হোসেন বাদী হয়ে সোনাগাজী মডেল থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দাখিল করেন। মডেল থানার ওসি মঈন উদ্দিন বলেন, লিখিত অভিযোগ পেয়ে এ.এস.আই দিদার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা নেয়া হবে।

উল্লেখ্য , এর আগেও কয়েকবার প্রবাসী আমির হোসেনের পরিবারের উপর হামলা করে বেলায়েত ও তার সহযোগীরা। স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান শামসুল আরেফিন পল্লী আদালতে ভুমি বিরোধ নিস্ফত্তি করে রায় দিলেও উক্ত রায় না মেনে বেলায়েত ভূমি দখলের পায়তারা করছে।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *