Main Menu

সোনাগাজী উপজেলা নির্বাচন : চেয়ারম্যান পদে হঠাৎ আলোচনায় লিপটন

সোনাগাজী প্রতিনিধি:
ভৌগলিক ও অর্থনেতিক কারনে ফেনীর সর্বাধিক গুরুত্বপূর্ন সোনাগাজী উপজেলা। এ উপজেলায় প্রস্তাবিত বঙ্গবন্ধু অর্থনৈতিক অঞ্চল, ২০০ মেঘাওয়াট বায়ু ও সৌর বিদ্যুত প্রকল্প স্থাপন সহ সরকারের বহু গুরুত্বপূর্ন প্রকল্পের কাজ চলমান । সে সব বিবেচনায় আসন্ন পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে সোনাগাজী উপজেলায় দক্ষ ও যোগ্য চেয়ারম্যান চায় এখানকার ভোটাররা।

জেলা আওয়ামী লীগ দলীয় মনোনয়ন বিক্রয়কালে ফরম সংগ্রহ করেছিলেন বর্তমান চেয়ারম্যান কামরুল আনাম, ভাইস চেয়ারম্যান আজিজুল হক হিরন, উপজেলা আ.লীগ সভাপতি রুহুল আমিন ও যুগ্ন সাধারন সম্পাদক জহিরুল আলম জহির।

আ.লীগ নেতারা অভিযোগ করেন, তৃণমূলে নুন্যতম যাচাই না করে চেয়ারম্যান পদে উপজেলা আ.লীগ সভাপতি রুহুল আমিনকে একক প্রার্থী ঘোষনা দেয় জেলা আওয়ামী লীগ। এর পর থেকেই স্থানীয় নেতারা নানান অভিযোগসহ কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে জোর তদবির শুরু করেন। সর্বশেষ আ.লীগ সাধারন সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এ ব্যাপারে অবহিত হন। তিনি জেলা আ.লীগের ঘোষনা বাতিল করে কেন্দ্রীয় আ.লীগের মনোনয়ন সংগ্রহ করার জন্য মনোনয়ন প্রত্যাশীদের নির্দেশ দেন।

 

কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে মনোনয়ন সংগ্রহ করেন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাবেক সহ সভাপতি জহির উদ্দিন মাহমুদ লিপটন, বর্তমান চেয়ারম্যান কামরুল আনাম, ভাইস চেয়ারম্যান আজিজুল হক হিরন ও উপজেলা আ.লীগ সভাপতি রুহুল আমিন।

 

তৃণমূল নেতাকর্মীদের মতে সাবেক ছাত্রনেতা ও আওয়ামী লীগের উপ-কমিটির সাবেক সহ সম্পাদক লিপটন মনোনয়ন প্রত্যাশীদের মধ্যে জনপ্রিয় ও যোগ্য। তাঁর পিতা প্রয়াত মুক্তিযোদ্ধা খাজা আহম্মদ সংগ্রাম কমিটির নেতা ছিলেন । এবং আমৃত্যু আ.লীগের বিভিন্ন পর্যায়ে দায়ীত্ব পালন করেছেন। লিপটন তরুন নেতৃত্বের আইডল ও ক্লিন ইমেজের হওয়ায় দলমত নির্ভিশেষে তরুনদের মাঝে বেশ জনপ্রিয় রাজনৈতিক ব্যাক্তিত্ব। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি দলের মনোনয়ন প্রত্যাশীদের মধ্যে অন্যতম ।

 

ছাত্রলীগ সভাপতি রবিন চৌধুরী বলেন সার্বিক বিবেচনায় জহির উদ্দিন মাহমুদ লিপটন যোগ্য ও জনপ্রিয়। মনোনয়ন সংগ্রহ করার খবর ছড়িয়ে পড়লে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম সহ সর্বত্র আলোচনায় তিনি ।

উপজেলা আ.লীগের যুগ্ন সাধারন সম্পাদক জহিরুল আলম জহির বলেন, মনোনয়ন প্রত্যাশীদের অনেকে লিপটনকে সমর্থন করেছেন। তিনি আরও বলেন, ২০০১সাল পরবর্তি চরম দুঃসময়ে জোট সরকারের ব্যাপক নির্যাতন সহ্য করেও তৃনমূল নেতাকর্মীদের পাশে ছিলেন লিপটন। সেসময় সারাদেশের ন্যায় ফেনী ও সোনাগাজীতে দলের সকল আন্দোলন সংগ্রামেও নেতৃত্ব দিয়েছিলেন তিনি। আসন্ন সোনাগাজী উপজেলা নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশিদের মধ্যে তিনিই সাংগঠনিকভাবে দক্ষ ও যোগ্য।

 






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *