Main Menu

সুনামগঞ্জে মেলার নামে চলছে টিকেট বিক্রির পায়তারা | বাংলারদর্পন 

মো. নাইম তালুকদার ,সুনামগঞ্জ :

সুনামগঞ্জের ষোলঘরে শিল্প-পণ্য মেলার উদ্বোধন হয়েছে ২৭ জানুয়ারী রোববার। উদ্বোধনের তিনদিন হলেও এখনো পুরোপুরি দোকানপাট সাজানো হয়নি মেলাটির। সুনামগঞ্জ জেলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে ও বাংলাদেশ বেনারশি মসলিন অ্যান্ড জামদানি সোসাইটির সার্বিক তত্ত্বাবধানে আয়োজিত মাসব্যাপী মেলায় রয়েছে ১শ’টি স্টল, ১৫টি প্যাভিলিয়ন। মেলায় প্রবেশ মূল্য রাখা হয়েছে ১০টাকা। তাছাড়া মেলায় আয়োজন করা হয়েছে আকর্ষণীয় র্যাফেল ড্র। এই র্যাফেল ড্র প্রতিদিন হবে বলে জানিয়েছেন মেলার এক কর্মকর্তা। আর বাংলাদেশ বেনারশি মসলিন অ্যান্ড জামদানি সোসাইটির সভাপতি মঈন খান বাবলু মেলার প্রবেশের টিকিট শুধু মেলার বুথে বিক্রি নয়, পুরো সুনামগঞ্জ শহরের বিভিন্ন এলাকায় টিকিট বিক্রি করার পায়তারা করছেন। এদিকে খেলার মাঠে মেলার আয়োজনের কারণে ক্ষুব্ধ স্থানীয় খেলোয়াররা।

খেলার মাঠ, উন্মুক্ত স্থান, উদ্যান ও প্রাকৃতিক জলাধার সংরক্ষণ আইন-২০০০ এর ৫ নম্বর ধারা অনুযায়ী, খেলার মাঠ অন্য কোনোভাবে ব্যবহার বা অনুরূপ ব্যবহারের জন্য ভাড়া, ইজারা বা অন্য কোনোভাবে হস্তান্তর করা যাবে না। এই আইন লঙ্ঘনে অনধিক পাঁচ বছরের কারাদন্ড বা অনধিক ৫০ হাজার টাকা অর্থদন্ড অথবা উভয় সাজার বিধান রয়েছে।

স্থানীয় একটি সূত্র জানিয়েছে, বাংলাদেশ বেনারশি মসলিন অ্যান্ড জামদানি সোসাইটির সভাপতি মইন খান বাবলু মেলার নামে প্রতিদিন র্যাফেল ড্র এবং মেলার মাঠের পিছনে সার্কেস হলে নগ্ননৃত্যের আয়োজন করছেন। আর মেলায় আগত দর্শনার্থীদের টিকিট বিক্রি করা হবে মেলার প্রবেশ গেইটের বুথে আর সুনামগঞ্জ শহরের বিভিন্ন এলাকায় সিএনজি অটোরিকশা ও রিকশা যোগে।

নাম না প্রকাশ করার শর্তে একজন স্থানীয় খেলোয়ার বলেন, আমরা দীর্ঘদিন থেকে এই মাঠে (কোলোনী মাঠ) খেলা করছি কিন্তু মেলার কারণে করতে পারছি না। এই মাঠে জেলা ক্রীড়া সংস্থা উদ্যোগে কোনো খেলার আয়োজন করেন না।

মেলায় প্রবেশ মূল্য রাখা হয়েছে ১০টাকা কিন্তু র্যাফেল ড্র প্রতিদিন হবে না বলে জানিয়েছেন সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসক ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সভাপতি আব্দুল আহাদ। প্রবেশ টিকিটের র্যাফেল ড্র হবে মেলার সমাপনী দিন। মেলায় আগত দর্শনার্থীদের টিকিট বিক্রি করা হবে শুধু মেলার প্রবেশ গেইটের বুথে। সুনামগঞ্জ শহরের অন্য কোথাও বিক্রি করা হলে ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

সুনামগঞ্জ জেলার পুলিশ সুপার মো. বরকতুল্লাহ খান বলেন- দর্শনার্থীদের টিকিট শহরের বিভিন্ন এলাকায় বিক্রি হবে কি না এবিষয়ে আমি কিছু জানি না। আপনি সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসকের সাথে আলাপ করেন।

সুনামগঞ্জ জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক দেওয়ান ইমদাদ রেজা চৌধুরী বলেন-র্যাফেল ড্র প্রতিদিন হবে না। প্রবেশ টিকিটের র্যাফেল ড্র হবে মেলার সমাপনী দিন। মাঠ সংস্কারের জন্য ৩০ লাখ টাকার চুক্তিতে বাংলাদেশ বেনারশি মসলিন অ্যান্ড জামদানি সোসাইটির সভাপতি মঈন খান বাবলুকে মাঠ বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে।

মেলার টিকিট শহরের বিভিন্ন এলাকায় বিক্রি হবে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে বাংলাদেশ বেনারশি মসলিন অ্যান্ড জামদানি সোসাইটির সভাপতি মঈন খান বাবলু বলেন- এবিষয়ে আমি কিছুই বলতে পারবো না। এটা আপনি জেলা ক্রীড়া সংস্থাকে জিজ্ঞেস করেন।

গত রোববার পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মন্নান মেলাটি উদ্বোধন করেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন-সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসক ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সভাপতি আব্দুল আহাদ, সুনামগঞ্জ জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক দেওয়ান ইমদাদ রেজা চৌধুরী, সুনামগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য পীর ফজলুর রহমান মিসবাহ, বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) এর পরিচালক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল, সুনামগঞ্জ জেলার পুলিশ সুপার মো. বরকতুল্লাহ খান, সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়র নাদের বখত।

 






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *