Main Menu

খাদ্যে বিষক্রিয়ায় একটি মৃত্যুও মেনে নেবে না কাতার

দোহা প্রতিনিধি :

খাদ্যে বিষক্রিয়ায় একটি মৃত্যুও মেনে নেবে না কাতার। মিনিস্ট্রি অব পাবলিক হেলথের (এমওপিএইচ) এক উর্ধ্বতন কর্মকর্তা সম্প্রতি এই ঘোষণা দিয়েছেন।

 

জনস্বাস্থ্য পরিচালক শেইখ ডঃ মোহাম্মেদ বিন হামাদ আল থানি বলেছেন, ‘খাদ্যে বিষক্রিয়ায় মৃত্যুর ঘটনা কমিয়ে আনাই আমাদের লক্ষ্য।’

 

খাদ্যে বিষক্রিয়ার বিষয়ে জন সচেতনতা বৃদ্ধি এবং খাদ্যে বিষক্রিয়ায় মৃত্যুর ঘটনা কমিয়ে আনার বিষয়ে এমওপিএইচ-এর একটি কর্মশালায় কর্মকর্তাদের সঙ্গে আলাপকালে এ কথা বলেন মোহাম্মেদ বিন।

 

মোহাম্মেদ বিন বলেছেন, ‘খাদ্যে বিষক্রিয়ায় মৃত্যুর ঘটনা বন্ধ করতে আমরা নজরদারি বাড়িয়েছি।’

 

লেগাটাম প্রসপারিটি ইনডেক্স ২০১৬-য়ের তালিকা অনুযায়ী স্বাস্থ্যসেবার মানের দিক থেকে গালফভুক্ত দেশগুলোর মধ্যে প্রথম এবং বিশ্বে ১৫তম অবস্থানে রয়েছে কাতার।

 

কর্মশালায় মোহাম্মেদ বিন বলেন, ‘খাদ্যে বিষক্রিয়ায় মৃত্যুর হার কমাতে কাজ করে যাচ্ছি আমরা। খাদ্যে বিষক্রিয়ায় আক্রান্তদের দুর্ভোগ এবং অসুবিধা কমিয়ে উন্নত চিকিৎসার ওপর গুরুত্ব দেয়া হবে। আমাদের বহু নামকরা হাসপাতাল এবং চিকিৎসাকেন্দ্র রয়েছে। খাদ্যে বিষক্রিয়া মুক্ত একটি নিরাপদ দেশ গঠনই আমাদের মূল লক্ষ্য।’

 

খাদ্যে বিষক্রিয়ার কোনো ঘটনা চোখে পড়লে সে বিষয়ে কর্তৃপক্ষকে রিপোর্ট করার জন্যও আহ্বান জানানো হয়েছে। এক্ষেত্রে অভিযোগগুলো গুরুত্বের সঙ্গে বিবেচনা করা হবে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। খাদ্য নিরাপত্তা বিভাগের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে গিয়ে খাবারের নমুনা সংগ্রহ করে কেন্দ্রীয় ল্যাবে তা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করবেন।

 

এছাড়া নতুন আইনের মাধ্যমে খাদ্যে ভেজাল এবং বিষক্রিয়ার জন্য দায়ী ব্যক্তি এবং প্রতিষ্ঠানকে শাস্তি দেয়া হবে। অপরাধ গুরুতর হলে প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেয়া হতে পারে বলেও হুশিয়ার করেছেন মোহাম্মেদ বিন।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *