Main Menu

‘শেখের বেটি বন্যাদুর্গতদের দেখতে আসবে স্বপ্নেও ভাবি নাই’

বাংলার দর্পন ডটকম >>>

কুড়িগ্রাম: ‘‘প্রধানমন্ত্রী নিজের হাত দিয়্যা হামাক ত্রাণ দিবে তাক চিন্তাও করি নাই। প্রধানমন্ত্রী বাঁচি থাকুক, দ্যশের মাইনষের জন্য কাম করুক এটাই হামরা চাই।’’

‘‘শেখের বেটি হাসিনার দেওয়া এই সাহায্য ছওয়া পওয়া নিয়্যা শান্তি মতো দুইবেলা কয়দিন খাবার পামো।’’

রোববার (২০ অাগস্ট) বিকেল সোয়া ৪টার দিকে কুড়িগ্রাম রাজারহাটের পাঙ্গা হাইস্কুল মাঠে প্রধানমন্ত্রীর হাত থেকে ত্রাণের প্যাকেট পেয়ে আবেগাপ্লুত হয়ে বাংলানিউজকে এসব কথা বলেন উপজেলার কালুয়ার চরের বন্যা দুর্গত ছুরোতভান বেওয়া (৬৫)।

ছিনাই ইউনিয়নের একতা বাজার এলাকার জোলেখা বেগম বাংলানিউজকে বলেন, ‘‘বানের পানিত সউগ ভাসে নিয়্যা গেইছে। বানভাসী হামারগুল্যাক প্রধানমন্ত্রী দেইখবার অাইসবে স্বপ্নেও ভাবি নাই।’’

 

‘জীবন দিয়ে হলেও আপনাদের ভাগ্য পরিবর্তন করবো’

‘বন্যার্তদের নগদ টাকা দেবো, ঘরবাড়ি করে দেবো’

‘যতোদিন বেঁচে আছি আপনাদের পাশেই থাকবো’

‘শেখের বেটি দেইখবার আইসবে স্বপ্নেও ভাবি নাই’

দিনাজপুর থেকে কুড়িগ্রামে পৌঁছালেন প্রধানমন্ত্রী কুড়িগ্রামে প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণের অপেক্ষায় নতুন ফসল না ওঠা পর্যন্ত বন্যার্তদের সহায়তা দিনাজপুরে প্রধানমন্ত্রী বন্যার্ত মানুষের মাঝে ত্রাণ সহায়তা হিসেবে প্রতিজনকে বিতরণ করা হয়েছে, ১০ কেজি চাল, ডাল এক কেজি, তেল এক কেজি, চিনি এক কেজি, লবণ এক কেজি, চিড়া এক কেজি, মুড়ি অাধা কেজি, মোমবাতি ১২টি, দিয়াশলাই ১২টি।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *