Main Menu

যানজট নিরসনে ফেনী শহরে চালু হলো পৌর সিএনজি

নগরবাসীর হয়রানি বন্ধে মোবাইল এপস চালু

বিশেষ প্রতিনিধি , ফেনী:
ফেনী শহরের দীর্ঘদিনের যানজট ও যাত্রীদের ভোগান্তি লাঘব করতে এবার পৌরসভার উদ্যোগে শহর এলাকায় চালু করা হয়েছে পৌর সিএনজি সেবা।

পৌর এলাকার বিভিন্ন রুটে চলাচল করবে লাল ও হলুদ রঙ সম্বলিত এসব সিএনজি। ভাড়া নিয়ে যাত্রী ও চালকের মধ্যকার বাকবিতণ্ডা এড়াতে ভাড়া নির্ধারণ করে তা তালিকা আকারে লাগানো হয়েছে প্রত্যেকটি সিএনজির পেছনের অংশে।

এছাড়া যেকোনো অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে এই আওতায় চলাচল করা প্রত্যেকটি সিএনজি ও চালকের তথ্য সংরক্ষিত থাকবে পৌরসভা কর্তৃপক্ষের কাছে।


চালকদের দেওয়া হবে পৌরসভার লোগো ও সিরিয়াল নাম্বার সম্বলিত শার্ট,যা যাত্রী পরিবহনের সময় পরিধান বাধ্যতামূলক করা হবে বলে জানিয়েছে পৌরসভার মেয়র নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজি।

বৃহস্পতিবার (২৮ অক্টোবর) দুপুরে এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন ফেনী ২ আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দিন হাজারী। ফেনী পৌরসভার মেয়র নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজির সভাপতিত্বে এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন ফেনী জেলা প্রশাসক আবু সেলিম মাহমুদ-উল হাসান, জেলা পুলিশ সুপার খোন্দকার নুরুন্নবী প্রমুখ।

একইদিন ফেনী পৌরসভার সেবা কার্যক্রমকে আধুনিকায়ন করার লক্ষ্যে চালু করা হয় ” মেয়র ফেনী পৌরসভা” নামের একটি মোবাইল এপস। যেখানে নগরবাসী ঘরে বসে জন্ম, মৃত্যু, নাগরিক,ওয়ারিশ সনদ, ট্রেড লাইসেন্সসহ বিভিন্ন সনদের আবেদন ও সেবা গ্রহণ করতে পারবেন।

জানতে পারবেন মেয়রের দৈনন্দিন কার্যক্রমের তথ্য ও পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীদের তথ্য। এছাড়া এপসের মাধ্যমে সরাসরি পৌরসভা কর্তৃপক্ষকে জানাতে পারবেন নিজেদের অভিযোগ ও পরামর্শ। জরুরি সেবা গ্রহণের ক্ষেত্রে এপসের মাধ্যমে যোগাযোগ করা যাবে স্থানীয় থানা,হাসপাতাল,ফায়ার সার্ভিস, ব্যাংক, ফার্মেসি, সহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সাংসদ নিজাম উদ্দিন হাজারী পুরো কার্যক্রমকে সাধুবাদ ও পৌর মেয়রকে ধন্যবাদ জানিয়ে এই কার্যক্রমের মাধ্যমে যানজটের কারণে নগরবাসীর যে দীর্ঘদিনের ভোগান্তি সেটা কেটে যাবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

অন্যদিকে জেলা প্রশাসক আবু সেলিম মাহমুদ-উল হাসান এই সেবার আওতায় থাকা সিএনজি চালকদের উদ্দেশ্যে বলেন, নগরবাসী যাতে এই সেবায় সন্তুষ্ট হতে পারে সেইদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে।

এছাড়া এসব রুটে যাতে অন্যকোনো বাহন চলাচল করে যানজট সৃষ্টি করতে না পারে সেদিকে প্রশাসন নজরদারি রাখবে বলে জানান তিনি।

এছাড়াও পৌরসভাসীর সেবায় চালু করা মোবাইল এপসের মাধ্যমে সেবাপ্রত্যাশীদের হয়রানি ও ভোগান্তি অনেকাংশে কমে যাবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে পুরো ফেনী জেলার নাগরিকদের সকল ধরনের হয়রানি কমাতে ও সকল সেবা সহজলভ্য করতে জেলার ৪৩ টি ইউনিয়নের প্রত্যেকটিকে এই সেবার আওতায় আনার লক্ষ্য কাজ চলছে৷

পাশাপাশি এরইমধ্যে প্রত্যেকটি ইউনিয়ন পরিষদের সচিবদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি।

শেয়ার করুনঃ





Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *