Main Menu

নির্বাচন অংশগ্রহণমূলক না হলে নির্বাচন বর্জনকারী দলই দায়ী থাকবে- খালেদা জিয়া

 

নিউজ ডেস্ক: ২০১৪ সালের জাতীয় নির্বাচনের পূর্বে তত্ত্বাবধায়ক সরকার ছাড়া নির্বাচন নয় এবং ‘বিএনপিবিহীন নির্বাচন গ্রহণযোগ্য হবে না’ বলে বিএনপি সেই নির্বাচন শুধু বর্জনই করেনি প্রতিরোধেরও চেষ্টা করেছিল। ২০১৯ সালের জাতীয় নির্বাচনকে সামনে রেখে অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের কথা যখন বারবার উচ্চারিত হচ্ছে সেসময় বিএনপি দুর্নীতি মামলায় আদালত কর্তৃক সাজাপ্রাপ্ত দলের চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে ছাড়া নির্বাচনে না যাবার ঘোষণা দিয়েছে, যদিও সূত্রমতে, দলটি তলে তলে নির্বাচনের প্রস্তুতিও গ্রহণ করে চলেছে।

সব দলের অংশগ্রহণের মাধ্যমে একটি অংশগ্রহণমূলক ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য সরকারের তরফ থেকে সংবিধান অনুযায়ী যুক্তিসঙ্গত সকল ব্যবস্থা গ্রহণের ঘোষণা ও প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকলেও প্রথমে শেখ হাসিনার অধিনে নির্বাচন নয় এবং এরপর খালেদা জিয়ার মুক্তি ছাড়া বিএনপির নির্বাচনে না যাবার সিদ্ধান্ত গ্রহণকে ভালো চোখে দেখছে না আন্তর্জাতিক মহল। কেননা ২০০১-২০০৬ সালে বিএনপি সরকারের ক্ষমতার মেয়াদান্তে তত্ত্বাবধায়ক সরকারকে প্রভাবিত করতে তাকে নিজেদের খুশিমতো সাজানোর বিরুদ্ধে দেশব্যাপী প্রতিবাদ ও আন্দোলন গড়ে উঠলে আওয়ামী লীগসহ সকল বিরোধী দল ২০০৭ এর ২২ জানুয়ারির নির্বাচন বর্জণের ঘোষণা দিলে বেগম খালেদা জিয়া ৫ জানুয়ারি সব দলকে নির্বাচনে অংশগ্রহণের আহ্বান জানিয়ে বলেছিলেন। (খালেদার বক্তব্য)

এছাড়া তৎকালীন বিএনপি মহাসচিব মান্নান ভুঁইয়াও সাংবিধানিক শূন্যতা সৃষ্টির হাত থেকে দেশকে রক্ষা ও সাংবিধানিক ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে নির্বাচনের বাধ্যবাধকতার কথা পরিস্কারভাবে উল্লেখ করেছিলেন। (মান্নান ভুইয়ার বক্তব্য)

অথচ ২০১৪ সালেও দেশ সেই সাংবিধানিক সংকট সৃষ্টি হবার উপক্রম হলেও নিজেদের কথা ভুলে গিয়ে নির্বাচন বর্জন করে তাকে প্রতিরোধ করার ব্যর্থ চেষ্টা চালিয়ে দেশকে অরাজক পরিস্থিতির দিকে ঠেলে দিয়েছিলেন।

তাই অতীতের মতো এবারও নিজেদের অসাংবিধানিক দাবির প্রতি অটল থেকে নির্বাচন বর্জনের মতো অপরিণামদর্শী সিদ্ধান্ত নিলে বেগম জিয়ার ৫ জানুয়ারির বক্তব্য অনুযায়ী নির্বাচন বর্জনকারী দলই তার জন্য দায়ী থাকবে এবং সেই নির্বাচন গ্রহণযোগ্য না হবার দাবিও ধোপে টিকবে না বলেই মনে করছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকগণ।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *